ঘোষণা:
আমাদের ওয়েবসাইটে স্বাগতম...

দই টক হওয়ায় বিয়ের অনুষ্ঠানে ভাঙচুর, আহত ২০

নিজস্ব প্রতিবেদক / ১৯ বার পঠিত
প্রকাশের সময়: বুধবার, ১৭ মে, ২০২৩, ১০:২৪ অপরাহ্ন

লক্ষ্মীপুরে বিয়ের দাওয়াতে দই টক হওয়াকে কেন্দ্র করে কনেপক্ষের আমন্ত্রিত অতিথিদের হামলা ও ভাঙচুরে আহত হয়েছেন ২০ জন।বুধবার দুপুরে সদর উপজেলার পৌর শহরের বাঞ্চানগর এলাকায় অবস্থিত কুটুমবাড়ি চাইনিজ রেস্টুরেন্ট ও পার্টি সেন্টারে এ হামলার ঘটনা ঘটে।এসময় বাধা দিতে এসে হামলার শিকার হন রেস্টুরেন্টের মালিক রাকিবুজ্জামান রাকিব, সোহেল, পরান, মাজেদ, শাহাদাত, ইউনুস ও রাসেলসহ ২০ জন।পরে অন্যরা এগিয়ে এলে তাদেরকেও মারধর করার অভিযোগ পাওয়া যায়। ঘটনার পর পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।পুলিশ ও বিয়ের আমন্ত্রিত অতিথিরা জানান, সদর উপজেলার শাহপুর এলাকার খোকন মিয়ার মেয়ে বৃষ্টির সাথে একই উপজেলার মহাদেবপুর গ্রামের জাফর চৌধুরীর ছেলে আল আমিনের বিয়ে হয়।এ উপলক্ষে বুধবার দুপুরে কুটুমবাড়ি চাইনিজ রেস্টুরেন্ট ও পার্টি সেন্টারে দু’পক্ষের খাওয়া-দাওয়ার আয়োজন করা হয়। খাওয়ার পর্বে দই টক হয়েছে বলে কনেপক্ষের অতিথিরা অভিযোগ করেন।এসময় প্রতিষ্ঠানটির মালিক রাকিবুজ্জামান রাকিব পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা চালালে কনেপক্ষের লোকজন উত্তেজিত হয়ে ওঠেন। পরে রেস্তরাঁর চেয়ার-টেবিলসহ আসবাবপত্র ভাংচুর করা হয়।এসময় হামলায় নারী-পুরুষসহ ২০ জন আহত হয়। পরে তাদের বিভিন্ন ক্লিনিক ও সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। হামলার পরপরই দ্রুত রেস্টুরেন্ট ছেড়ে যায় কনে ও বরপক্ষের অতিথিরা।প্রতিষ্ঠানটির মালিক রাকিবুজ্জামান রাকিব জানান, হামলাকারীরা সেখানে থাকা কাচের প্লেট ও প্লাস্টিকের চেয়ার দিয়ে এ হামলা চালায়। এসময় রেস্তোরাঁর আসবাবপত্র ভাংচুর করা হয়। এ ঘটনায় তিনি থানায় মামলা করবেন বলে জানিয়েছেন।তবে কনের বাবা খোকন ও বর আলআমিন এ ঘটনায় সংবাদ প্রকাশে অনাগ্রহ জানিয়ে কোনও বক্তব্য দিতে রাজি হননি।সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোসলেহ্ উদ্দিন জানান, লক্ষ্মীপুর পৌর শহরের কুটুমবাড়ি চাইনিজ রেস্টুরেন্ট ও পার্টি সেন্টার হামলার ঘটনার পর পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পুলিশ পাঠানো হয়। পরিস্থিতি বর্তমানে শান্ত রয়েছে। হামলাকারীদের বিরুদ্ধে মামলার প্রস্তুতি চলছে।

 Save as PDF


এ জাতীয় আরো খবর...
এক ক্লিকে বিভাগের খবর